Daulatpur College



Md. Sadikuzzaman



দীর্ঘ ২৪ বছর পূর্বে ছাত্র হিসাবে এই কলেজে পদার্পন ঘটেছিল। এ সময় আমার প্রবল ইচ্ছে ছিল কলেজ থেকে একটি স্বরণিকা প্রকাশিত হোক। ছাত্র জীবনে আমার সে প্রত্যাশা পূরন হয়নি। ছাত্র জীবনের পাঠ চুকিয়ে এই কলেজে প্রথমে প্রভাষক হিসাবে ২০০২ সালে যোগদান অতপর উপাধ্যক্ষ পদে নিয়োগ এবং কালের নিয়মে আজ অধ্যক্ষ। দৌলতপুর কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ রফিকুল আলম স্যার, দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালনকালীন সময়ে অত্যন্ত দক্ষতার সাথে এই কলেজটিকে একটি যুগোপযোগী পূর্নাঙ্গ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে রুপান্তরিত করায় তার প্রতি আমরা চির কৃতজ্ঞ। আমি স্যারের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ূ কামনা করি। অত্র কলেজের সাবেক উপাধ্যক্ষ মোঃ আমানুল হক অত্যন্ত বিচক্ষনতার সাথে সুচারুরুপে দীর্ঘ সময় নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। তার প্রতিও আমার স্বশ্রদ্ধ সালাম। এছাড়া অত্র কলেজের সৌন্দর্য বর্ধনের জন্য অত্র কলেজকে সুন্দর মনোরম সবুজ ক্যাম্পাস হিসাবে গড়ে তোলার অনন্য অবদান সরূপ মোঃ শফিউল আলম নান্নু স্যারের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। সবচেয়ে বেশী কৃতজ্ঞতা জানাই যারা এই কলেজ প্রতিষ্ঠালগ্নে দাতা এবং প্রতিষ্ঠাতা হিসাবে এই কলেজটি প্রতিষ্ঠা করেছেন। অত্র কলেজ প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকে যে সকল শিক্ষক/কর্মচারী অবসর গ্রহন করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা স্বরূপ দীর্ঘায়ু কামনা কর এবং যে সমস্ত শিক্ষক/কর্মচারী মৃত্যুবরন করেছেন তাদের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করি। কলেজে ২৪ বছর আগের যে বাসনা ছিল আমার সে অতৃপ্ত প্রত্যাশা আজ পূরন হতে চলেছে। আমার শিক্ষক, আজকের সহকর্মী ও বড় ভাই এবং অন্যান্য সহকর্মীরা আমার সে প্রত্যাশা আজ পূরন করতে চলেছে। তারা অক্লান্ত প্ররিশ্রম করে স্বরণিকাটি প্রকাশ করেছে। তাদের এ মহতি উদ্যোগ ও কর্মের প্রসংশা করি। ভবিষ্যতে তাদের এ প্রচেষ্টা আরও ব্যাপ্তি লাভ করবে এ প্রত্যাশা করি।

অধ্যক্ষের বাণী